http://nirbhiknews.com/wp-content/uploads/2018/05/arrest-in-Dhaka.jpgরাজধানীর বাসাবোর ওহাব কলোনি ও তালতলা মার্কেট বস্তিতে বুধবার দিবাগত রাতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে নারীসহ ৩৩ জনকে আটক করেছে। তাদের কাছ থেকে পাঁচ হাজার পিচ ইয়াবা বড়ি, ১১ কেজি গাঁজা, ১২৫ পুরিয়া হেরোইন উদ্ধার করা হয়েছে।

পুলিশ সূত্র জানা গেছে, বুধবার দিবাগত রাত ১০টার দিকে মতিঝিল বিভাগের পুলিশ বাসাবোর বৌদ্ধ মন্দিরে জড়ো হয়। সেখান থেকে নির্দেশনা অনুযায়ী পুলিশ দুই দলে বিভক্ত হয়ে বাসাবোর ওহাব কলোনি ও তালতলা মার্কেট বস্তিতে অভিযান চালায়। এর আগে দুটি মাদক স্পট বাইরে থেকে ঘিরে রাখে পুলিশ। অভিযানে ওহাব কলোনিতে আড়াই শ ও তালতলা মার্কেট বস্তিতে ১০০ পুলিশ অংশ নেয়। এতে গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) এবং পুলিশের ডগ স্কোয়াড অংশ নেয়। অভিযানের নেতৃত্ব দেন পুলিশের মতিঝিল বিভাগের উপকমিশনার মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন।

পুলিশ কর্মকর্তারা বলেন, পুলিশ সদস্যরা ওহাব কলোনির ছাপড়া ঘর ও তালতলা মার্কেট বস্তিতে ঢুকে পড়ে। সেখান থেকে একের পর এক মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করে। তাদের কাছ থেকে মাদক উদ্ধার করা হয়। রাত সোয়া ১২টায় অভিযান শেষ হয়।

অভিযান শেষে ঘটনাস্থলে পুলিশের মতিঝিল বিভাগের উপকমিশনার আনোয়ার হোসেন বলেন, গ্রেপ্তারকৃতরা সবাই মাদক ব্যবসায়ী। ওহাব কলোনি থেকে ২৩ জন ও তালতলা মার্কেট বস্তি থেকে ১০ জনকে আটক করা হয়। তাদের মধ্যে ওহাব কলোনি থেকে গ্রেপ্তার করা রাজীব ও নুরজাহান সবুজবাগ থানার শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী। আটক হওয়া ছয় পুরুষ ও চার নারী সবুজবাগ ও খিলগাঁও থানার তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ী।

পুলিশের এই কর্মকর্তা বলেন, আটক কয়েকজনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা রয়েছে। যাচাই বাছাই শেষে যাদের মাদক ব্যবসায় সম্পৃক্ততা পাওয়া যাবে না তাদের ছেড়ে দেওয়া হবে। অন্যদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য আইনে নতুন মামলা করা হবে।