Nirbhiknewsজেলায় আগাম জাতের সবজি ফসল হিসেবে শিম চাষ করে অধিক লাভবান হচ্ছেন কৃষকরা। ফলে দিন দিন আগাম জাতে সবজি চাষে কৃষকদের আগ্রহ বৃদ্ধি পেয়েছে।
জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্র জানায়, চলতি মৌসুমে জেলায় আগাম জাতের শিমের চাষ হয়েছে ৪শ’ হেক্টর জমিতে। এতে উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ৫ হাজার ৪শ’ মেট্রিক টন শিম।

সদর উপজেলার দোগাছী ইউনিয়নের দোগাছী গ্রামের নেপুন চন্দ্র এবার ৫ শতাংশ জমিতে শিম চাষ করে অধিক লাভবান হয়েছেন। তিনি জানান, আগাম জাতের ফসল চাষ করলে বাজারে ভাল দাম পাওয়া যায়। সেই আশায় আগাম জাতের সবজি হিসাবে শিম চাষ করে থাকি। গত ১৫ দিনে ৩ হাজার টাকার শিম বিক্রি করেছেন বলেও জানান তিনি। বর্তমানে বাজারে এই শিম ৬০ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে বলেও জানান নেপুন চন্দ্র। ওই এলাকায় ঘুরে দেখা যায়, অনেক জমিতেই সবজি হিসেবে করলা, শিম, মূলা , বরবটি, পাতা পেঁয়াজ ও ধনিয়া, মরিচ চাষ করা হয়েছে। কৃষক নারায়ন চন্দ্র বলেন, সবজি চাষ করেই ওই এলাকার কৃষকরা সংসারে স্বচ্ছলতা এনেছেন।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ পরিচালক সুধেন্দ্র নাথ রায় বলেন, জয়পুরহাটের মাটি সবজি চাষের উপযোগি। তার মধ্যে বন্যার ক্ষতি পুষিয়ে নিতে কৃষকরা আগাম জাতের বিভিন্ন সবজি চাষ করে অধিক লাভবান হচ্ছেন।